Home » খেলাধুলা » ক্রিকেট » ক্রিকেট ইতিহাসে ভাই যুগলের যত ইতিহাস
ক্রিকেট ইতিহাসে ভাই যুগলের যত ইতিহাস
ক্রিকেট ইতিহাসে ভাই যুগলের যত ইতিহাস

ক্রিকেট ইতিহাসে ভাই যুগলের যত ইতিহাস

সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে ঘটে গেল এক মজার দৃশ্য । বল সীমানা ছাড়িয়েছে ভেবে মিচেল মার্শ উইকেটের মাঝখানেই  দাড়িয়ে আনন্দ উল্লাসে  মেতেছিলেন।কেবলমাত্র মার্শ এর ক্রিকেট ক্যারিয়ারের  দ্বিতীয় সেঞ্চুরি, অপর  দিকে অন্যপ্রান্তে সঙ্গী হিসেবে আছেন আপন বড় ভাই। তাইতো আনন্দটা একটু বেশিই হতে পারে। তবে মিচেল তার ভুল বুঝতে পেরে  সঠিক সময়ে  ক্রিজে ফিরতে পেরেছিলেন বলে একই বলে সেঞ্চুরি করা ও রানআউট হওয়ার  থেকে অনন্য এক রেকর্ড করতে হয়নি।কিন্তু যে রেকর্ড মার্শ করেছেন, সেটাও কী কম ! একই ইনিংসে দুই ভাইয়ের সেঞ্চুরি  করা ক্রিকেটের ১৪০ বছরের টেস্ট ইতিহাস দেখেছেনই-বা কয়বার এবংকতজন?

এই কথাটি যখন এল,  তখন উত্তরও হয়ে যাক। ক্রিকেট খেলায় দুই ভাই একই টেস্টে সেঞ্চুরি করছেন, এমন মাত্র আটবার দেখতে পেরেছে ক্রিকেট বিশ্ব। তাহলে আট দ্বিগুণে ১৬ জন  ক্রিকেটার যে এমন কিছু করেছেন, তা কিন্তু নয়। মাত্র ১০ জনে ক্রিকেট খেলোয়ার যাদের সৌভাগ্য হয়েছে একই ইনিংসে আপন সহোদর  ভাইয়ের সঙ্গে সেঞ্চুরির আনন্দ ভাগাভাগি করতে পারার।তাহলে বলুন তো সেই সৌভাগ্যবান সহোদর যুগল তাঁরা কারা?

হয়তো শুরুতেই  আপনার মাথায় স্টিভ ও মার্ক ওয়াহ এই  দুজনের নাম চলে আসবে।তাই বলে হতাশ হবেন না। মার্শ ভাইদের আগে সর্বশেষ এমন কিছু দেখিয়েছেন  অজি দুই ক্রিকেটার স্টিভ ওয়াহ ও মার্ক  ওয়াহ।সে দুজন ইংল্যান্ডের বিপক্ষেই ২০০১ সালে ওভাল টেস্টে পায়ে চোট নিয়েও স্টিভ ১৫৭ রান করেছিলেন। আর মার্ক তুলেছিলেন ১২০ রান।  আরও একবার একই ইনিংসে সেঞ্চুরি করেছিলেন ১৯৯৫ সালে অজি এ দুই ভাই । কিংসটনে সেঞ্চুরি করার পাশাপাশি দুজনে মিলে জুটিতে  ২৩১ রান করেন। সেখানে  মার্শ ভাইয়েরা একটু কম রানই করেছেন। তাদের সংগ্রহ (১৬৯) রান।

ইয়ান চ্যাপেল ও গ্রেগচ্যাপেল অস্ট্রেলিয়ান ভাইদের মধ্যে জুটিতে সবচেয়ে বেশি রানের মালিক। এ দুই ভাই যারা  নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ২৬৪ রান তুলেছিলেন তাদের জুটিতে। ১৯৭৪ সালের সে টেস্টে প্রথম ইনিংসে গ্রেগ করেছিলেন ২৪৭*, আর ইয়ান আউট হয়েছিলেন ১৪৫ রানে। দুই ভাই কিন্তু সেখানেই থামেননি। পরের ইনিংসেও আবারও সেঞ্চুরি দুজনের! এবার ইয়ান চ্যাপেল হাকালেন  ১২১ রান আর গ্রেগ ১৩৩ রান।

দুজনের এমন কীর্তি আছে আরও একবার!ভাইদের জুটিতে সর্বোচ্চ রান করা দুজনকেও সবার চেনার কথা তারা হলেন জিম্বাবুয়ের দুই ভাই, অ্যান্ডি ও গ্র্যান্ট ফ্লাওয়ার। বাংলাদেশের টেস্ট ক্রিকেটের প্রথম দিককার অতিপরিচিত দুই ভাই, পাকিস্তানের বিপক্ষে ১৯৯৫ সালে ২৬৯ রান তুলেছিলেন। গ্রান্ট ফ্লাওয়ার করে ছিলেন সে ম্যাচে ২০১ রান আর অ্যান্ডি করেছিলেন ১৫৬ রান।

এমন অর্জনে  পাকিস্তানেরও  কিন্তু অংশগ্রহণ রঢয়ছে। ১৯৭৬ সালে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে হায়দরাবাদ টেস্টে সেঞ্চুরি পেয়েছিলেন পাকিস্তানের দুই ভাই মুশতাক ও সাদিক মোহাম্মদ।

টেস্টে এক ইনিংসে ভাইদের সেঞ্চুরি

ম্যাচ ভেন্যু সাল
ইয়ান ও গ্রেগ চ্যাপেল অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ড ওভাল ১৯৭২
ইয়ান ও গ্রেগ চ্যাপেল অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ড ওয়েলিংটন ১৯৭৪
ইয়ান ও গ্রেগ চ্যাপেল অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ড ওয়েলিংটন ১৯৭৪
মুশতাক ও সাদিক মোহাম্মদ পাকিস্তান-নিউজিল্যান্ড হায়দরাবাদ ১৯৭৬
স্টিভ ও মার্ক ওয়াহ অস্ট্রেলিয়া-ও. ইন্ডিজ কিংস্টন ১৯৯৫
গ্রান্ট ও অ্যান্ডি ফ্লাওয়ার জিম্বাবুয়ে-পাকিস্তান হারারে ১৯৯৫
স্টিভ ও মার্ক ওয়াহ অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ড ওভাল ২০০১
শন মিচেল মার্শ অস্ট্রেলিয়াইংল্যান্ড সিডনি ২০১৭

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

%d bloggers like this: