Home » শিল্প ও সাহিত্য » কবিতা » গন্ধবিভোর রাত
গন্ধবিভোর রাত
গন্ধবিভোর রাত

গন্ধবিভোর রাত

হে চির যৌবনা প্রাণবন্ত বসন্ত আমার
তোমার আগমনে আমাকে আবেগে আপ্লুত হতে দাও।
তোমার স্তুতিগান গাইতে আমাকে আরও প্রলুব্ধ করো
তোমার আগমনী ধ্বনি শতধারায় বেজে উঠুক আজ।

আমাকে আজ শুতে দাও তোমার বুকে গজিয়ে উঠা
কচিকাঁচা সবুজ ধানের বিস্তীর্ণ মাঠের উপর।
আমার অবসন্ন ক্লান্ত শ্রান্ত শরীরে আজ মেখে দাও;
মখমলে দখিনা বাতাসের প্রাণবন্ত ফুরফুরে হাওয়া।

আমার উন্মতাল নাসারন্ধ্র পথে গুঁজে দাও;
বসন্ত টানে কলির গোমটা ছিঁড়ে জেগে উঠা
হাজারো রঙিন ফুলের প্রস্ফুটিত পাপড়ি ঘ্রাণ।
আমাকে আজ গোগ্রাসে শুকে নিতে দাও;
কাঁঠালের মুচির রাশি রাশি মনোলোভা গন্ধবিভোর রাত।

আমাকে আজ একটু বসতে দাও;
বিশাল মাঠের মধ্যখানে আমের মুকুলে ছেয়ে যাওয়া
ঐ পত্রহীন গাছের সুবাসিত ছায়ায় নিচে।
ঝরতে দাও আজ; আমার মাথার অগোছালো কেশগুচ্ছে
হে মকুলিতনয়না তোমার শাখা হতে কিছু ছিন্ন অশ্রুমুকুল।

আমি গন্ধবিধুর এক উদ্ভ্রান্ত পথিক হব আজ
চিরায়ত এই সবুজ বাংলার পথেঘাটে,
নয়ন জুড়াব ঐ সবুজাভ রং মেখে।
আমাকে শুনতে দাও; এই বিষণ্ন দুপুরে
ঝিঁঝিঁ পোকার অনবরত ঝিঁ ঝিঁ ডাক।
আমাকে গাইতে দাও; ভোরের দোয়েল পাখি
কিংবা দুপুরে বিরহী কোকিলের মতো গান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

%d bloggers like this: